নিউজটি শেয়ার করুন

আগুনে পুড়ল জাপানের ৫০০ বছরের পুরনো শুরি প্রাসাদ

দেশটির দক্ষিণাঞ্চলীয় দ্বীপ ওকিনাওয়ার রাজধানী নাহা-র একপাশে একটি পাহাড়ের ওপর অবস্থিত প্রাসাদটিতে বৃহস্পতিবার ভোররাতে আগুন লাগে। আগুন লাগার কারণ পরিষ্কার হয়নি।

আগুন নিয়ন্ত্রণে আনতে ভোররাত থেকেই দমকল কর্মীরা চেষ্টা করে যাচ্ছেন বলে জানিয়েছে বিবিসি। এ পর্যন্ত কেউ আহত হয়েছেন বলে খবর পাওয়া যায়নি।

৫০০ বছর আগে রুকিউ রাজবংশের আমলে কাঠের এই প্রাসাদটি তৈরি করা হয়েছিল। ১৯৩৩ সালে প্রাসাদটিকে জাপানের জাতীয় সম্পদের মর্যাদা দেওয়া হয়।

দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের সময় দ্বীপটিতে এক লড়াই চলাকালে প্রাসাদটি সম্পূর্ণ ধ্বংস হয়ে গিয়েছিল। তারপর বর্তমান স্থাপনাটি পুনর্নির্মাণ করা হয়।

স্থানীয় গণমাধ্যম জানিয়েছে, আগুনে প্রাসাদের প্রধান ভবনের পাশাপাশি উত্তর ও দক্ষিণের কাঠামোগুলোও পুড়ে ছাই হয়ে গেছে।

ওকিনাওয়া পুলিশের মুখপাত্র রিও কোচি বলেন, “এখনও আগুন লাগার কারণ বের করা যায়নি। ভোররাত আড়াইটায় একটি নিরাপত্তা কোম্পানির অ্যালার্ম বেজে উঠেছিল।”

পাহাড়ের ওপর থেকে নাহা শহরের দিকে তাকিয়ে থাকা শুরি প্রাসাদের চারদিকটা ঢেউ খেলানো পাথরের দেয়াল দিয়ে ঘেরা। ১৯৭০-রের দশক পর্যন্ত এটি ওকিনাওয়ার সবচেয়ে বড় বিশ্ববিদ্যালয়ের ক্যাম্পাস হিসেবে ব্যবহৃত হয়েছে। তারপর থেকে জনপ্রিয় পর্যটন গন্তব্য হয়ে উঠেছে।

ওকিনাওয়ার পর্যটন সাইটের তথ্যানুযায়ী, রুকিউ রাজবংশের আমলে এই প্রাসাদটি তিনবার আগুনে পুড়েছিল, এরপর দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের সময় ওকিনাওয়ার লড়াই চলাকালে আরেকবার পুড়ে ধ্বংস হয়েছিল।

বর্তমানে এটি ওকিনাওয়ার বৃহত্তম কাঠের ভবন।