রাতে ফেসবুক বন্ধ রাখার দাবি রওশন এরশাদের

নিউজটি শেয়ার করুন

0Shares
0 0

তরুণ প্রজন্মকে রক্ষা আর পড়াশোনায় মনোযোগী করে তুলতে রাত ১২ টা থেকে সকাল সাতটা পর্যন্ত ফেসবুক বন্ধ রাখার জোর দাবি জানিয়েছেন বিরোধীদলীয় নেতা রওশন এরশাদ।

মঙ্গলবার (১৮ নভেম্বর) সংসদ অধিবেশনে রাষ্ট্রপতির ভাষণের ওপর এবং ৬ষ্ঠ অধিবেশনের সমাপনী বক্তৃতায় এ তিনি দাবি জানান।

রওশন এরশাদ বলেন, আমাদের তরুণ সমাজ দিন দিন নষ্ট হয়ে যাচ্ছে। এই ফেইসবুক বন্ধ করা না হলে তারা পড়ালেখায় মনোযোগী হতে পারবে না। সারারাত ফেসবুক চালিয়ে তাদের চোখ মুখ ফুলে গেছে, লাল হয়ে গেছে।

নারীর ক্ষমতায়নে চিত্র তুলে ধরে তিনি বলেন, এই সংসদেই পুরুষের তুলনায় নারীর সংখ্যা অনেক কম। আমরা গুটিকয়েক মহিলা নিয়ে নারীর ক্ষমতায়নের কথা বলা যাবে না। আমাদের শিক্ষার হার দেখতে হবে। মহিলারা কিভাবে অত্যাচারিত হচ্ছে সেটা দেখতে হবে, সেটা দেখতে হবে।

সরকার–বিরোধী দলের সমন্বয়ে দেশ দুর্বার গতিতে এগিয়ে যাচ্ছে উল্লেখ করে রওশন এরশাদ বলেন, জাতীয় পার্টি বিরোধী দল হিসেবে সরকারের ভুল ত্রুটি তুলে ধরছে। পাশাপাশি সরকারের সঙ্গে সমন্বয় করে উন্নয়নে সহযোগিতা করছে। যে কারণে দেশ দুর্বার গতিতে এগিয়ে যাচ্ছে। দেশের উন্নয়নে জাতীয় পার্টি ভূমিকা কোনো অংশে কম নয়। ইতিহাস একদিন এর মূল্যায়ন করবে। অতীতে সরকার ও বিরোধী দলের সমন্বয় হয়নি। যে কারণে দেশের অগ্রগতি হয়নি বলেও দাবি করেন তিনি।

বিরোধী দলীয় নেতা বলেন, অর্থমন্ত্রী বলেছেন, বাংলাদেশ সিঙ্গাপুর মালয়েশিয়াকে অতিক্রম করে যাবে। অর্থমন্ত্রী কীভাবে এ কথা বললেন, তার ব্যাখ্যা শোনার জন্য তিনি অধীর আগ্রহে আছেন। রওশন বলেন, ব্যাংকে টাকা নেই, অনেকে ব্যাংক থেকে ঋণ নিয়ে ফেরত দেয়নি, টাকা বাইরে নিয়ে গেছে, শেয়ার বাজারে ধস নেমেছে, কেন্দ্রীয় ব্যাংকের রিজার্ভ চুরি হয়ে গেছে, সোনা তামা হয়ে গেছে। এই পরিস্থিতিতে কীভাবে বাংলাদেশ মালয়েশিয়া, সিঙ্গাপুরকে টপকে যাবে তার একটি ব্যাখ্যা অর্থমন্ত্রীর দেওয়া উচিত। সংসদে শিক্ষামন্ত্রী দীপু মনির সমালোচনা করেন রওশন এরশাদ।

তিনি বলেন, শিক্ষামন্ত্রী বেশির ভাগ সময় বিদেশে থাকেন, তাহলে কীভাবে শিক্ষার উন্নয়ন হবে। তাঁকে খুবই কম দেখেছি সংসদে। কোনো সময় তাঁকে পাওয়া যায় না। আজকেও নেই।’

পরিকল্পনামন্ত্রী এম এ মান্নানের সাম্প্রতিক সময়ে কচুরিপানা নিয়ে বক্তব্যের সমালোচনা করে রওশন বলেন, ‘কিছু কচুরিপানা নিয়ে এসেছিলাম। প্ল্যানিং মিনিস্টার এখানে নেই। গরুর খাবার কি মানুষ খেতে পারে? ঘাসে তো ভিটামিন আছে। আমরা কি ঘাস খাই?’

রাজধানীতে মশার উপদ্রব বেড়েছে উল্লেখ করে আবর্জনা পরিষ্কার করা না হলে ট্যাক্স দেয়া বন্ধ করে দেয়ার কথা বলেন তিনি। রওশন এরশাদ বলেন, মশার যন্ত্রণায় এখন কথা বলা যায় না। কথা বলতে গেলে মুখে মশা ঢুকে যায়। সিটি করপোরেশনের মেয়ররা ড্রেন পরিষ্কার করে না। জনগণের ট্যাক্সের টাকায় ড্রেন পরিষ্কার করার কথা। যদি পরিষ্কার না করে তাহলে আমরা ট্যাক্স দেয়া বন্ধ করে দেব।