নিউজটি শেয়ার করুন

সিলেটে ৩১ ঘণ্টা পর বিদ্যুৎ সরবরাহ শুরু

সিপ্লাস ডেস্ক: গ্রিড উপকেন্দ্রে অগ্নিকাণ্ডে সিলেটে বিদ্যুৎ বন্ধ হওয়ার ৩১ ঘণ্টা পর সরবরাহ ফের শুরু হয়েছে।

সবকিছু ঠিকঠাক থাকলে সব এলাকায় পর্যায়ক্রমে বিদুৎ সরবরাহ করা হবে বলে সিলেট বিদ্যুৎ উন্নয়ন বোর্ডের প্রধান প্রকৌশলী (বিক্রয় ও বিতরণ) খন্দকার মোকাম্মেল হোসেন জানিয়েছেন।

খন্দকার মোকাম্মেল বুধবার সন্ধ্যার পর সংবাদিকদের জানান, ‘টেস্ট রান’ সফল হওয়ার পর বুধবার সন্ধ্যা ৬টার পর নগরীর বিভিন্ন এলাকায় বিদ্যুৎ সরবরাহ শুরু হয়েছে।

মঙ্গলবার সকাল সাড়ে ১১টার দিকে সিলেটের কুমারগাঁওয়ে জাতীয় গ্রিড লাইনের দুটি ট্রান্সমিটারে আগুন লাগে। এরপর থেকে সিলেটের পিডিবি ও পল্লী বিদ্যুতের গ্রাহকরা বিদ্যুৎহীন হয়ে পড়েন।

খন্দকার মোকাম্মেল হোসেন বলেন, বুধবার বিকাল সাড়ে ৪টায় কুমারগাঁও গ্রিড সাব স্টেশনের মেরামত সম্পন্ন হয়েছে। ৫টার আগে ‘টেস্ট রান’ করা হয় এবং এতে ত্রুটি ধরা না পড়ায় সন্ধ্যা ৬টার পর থেকে ডিভিশন ১ ও ২-এ বিদ্যুৎ সরবরাহ করা হয়।

দুর্ঘটনার পর থেকে প্রায় ৪০০ কর্মী কাজ করছেন জানিয়ে তিনি বলেন, মেরামত করা কিছু পিলার পরীক্ষামূলকভাবে চালু করা হয়েছে। সবকিছু ঠিকঠাক থাকলে সব এলাকায় পর্যায়ক্রমে বিদুৎ সরবরাহ করা হবে।

কর্তৃপক্ষ জানায়, আগুনে প্রায় ৭০ কোটি টাকা মূল্যের ২৫/৪১ এমবিএ দুটি ট্রান্সফরমার পুড়ে গেছে। এছাড়া ৩৩ কেভি ফিডার ও বার ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে।

খন্দকার মোকাম্মেল হোসেন জানান, পুড়ে যাওয়া দুটি পাওয়ার ট্রান্সফরমারে জায়গায় একটি দিয়ে আপাতত বিদ্যুৎ চালু করার চেষ্টা করছে পিডিবি। ফলে রেশনিং পদ্বতিতে লোড ভাগ করে বিভিন্ন ফিডারে বিদুৎ দেওয়া হবে।

এর আগে বেলা ২টার দিকে গাজীপুর থেকে পাওয়ার ট্রান্সফরমার এসে সিলেটে পৌঁছায় এবং নতুন পাওয়ার ট্রান্সফরমার বসানোর পর পুরো সিলেট মহানগরী এলাকায় বিদ্যুৎ সরবরাহ করা হবে বলে তিনি জানান।

সিলেটের ফায়ার সার্ভিস এন্ড সিভিল ডিফেন্স উপ-পরিচালক শওকত হোসেন বলেন, ট্রান্সমিটারের জ্বালানি তেল থেকে এই আগুনের সূত্রপাত বলে প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে।

এই অগ্নিকাণ্ডে ২০০ কোটি টাকার ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে বলে প্রাথমিকভাবে ধারণা করছেন উপকেন্দ্রের সংশ্লিষ্টরা।

এই অগ্নিকাণ্ডের কারণ নিরূপণে চার সদস্যের তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়েছে।

সিলেট পল্লী বিদ্যুৎ উন্নয়ন ও বিতরণ বিভাগ-২ এর নির্বাহী প্রকৌশলীকে আহ্বায়ক করে এই তদন্ত কমটি গঠন করা হয়।

কমিটিকে আগামী তিন দিনের মধ্যে নির্বাহী পরিচালক (ওএন্ডএম) পিজিসিবি বরাবর প্রতিবেদন দাখিল করতে বলা হয়েছে।

পাওয়ার গ্রিড কোম্পানি অব বাংলাদেশের উপ-মহাব্যবস্থাপক রূপক মোহাম্মদ নাসরুল্লাহ্ জায়েদী স্বাক্ষরিত এক পত্রে এই নির্দেশনা দেওয়া হয়।

বিদ্যুৎ ব্যবস্থার বিপর্যয়ে বিপাকে পড়েন সিলেট নগরীর লোকজন। বিশেষ করে বিদ্যুৎ না থাকায় পানি সরবরাহ বন্ধ থাকায় বাসা-বাড়ি ও হাসপাতালে রোগীরা চরম দুর্ভোগে পড়েন। একই সঙ্গে অফিস-আদালতের কার্যক্রমও ব্যাহত হয়।