নিউজটি শেয়ার করুন

জিয়ার লাশ যারা সরাবে, তাদের কালো হাত ভেঙে যাবে: বিএনপি

সিপ্লাস ডেস্ক: রাজধানীর চন্দ্রিমা উদ্যান থেকে জিয়াউর রহমানের মাজার সরানোর বিরুদ্ধে হুশিয়ারি দিয়ে তাকে নিয়ে সরকারের মন্ত্রী ও আওয়ামী লীগ নেতাদের বক্তব্যের প্রতিবাদ জানিয়েছে বিএনপি।

মঙ্গলবার দুপুরে এক সংবাদ সম্মেলনে কেন্দ্রীয় দপ্তরের দায়িত্বে থাকা দলের সাংগঠনিক সম্পাদক সৈয়দ এমরান সালেহ প্রিন্স এ প্রতিক্রিয়া জানান।

তিনি বলেন, “বর্তমান শাসকগোষ্ঠী দিগবিদিক জ্ঞানশূন্য হয়ে এখন নতুন করে মুক্তিযুদ্ধের ঘোষক শহীদ রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমান বীর উত্তমের লাশ, মাজার এমনকি মহান মুক্তিযুদ্ধে তার অবদান নিয়ে আপত্তিকর, নির্মম, নিষ্ঠুর ও ঘৃণ্য মিথ্যাচার করছে। প্রধানমন্ত্রীর উৎসাহেই এবং তার গুডবুকে থাকার জন্যই পারিষদবর্গ পাগলের প্রলাপ বকছেন। তাদের একমাত্র কাজ হচ্ছে মিথ্যাচার, বিষোদ্গার, চরিত্র হনন ও মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাস বিকৃতি।

“মিথ্যা প্রলাপকারী এসব অর্বাচীন মন্ত্রী-নেতাদের জিজ্ঞাসা করতে চাই, মুক্তিযুদ্ধের সময়ে তারা কোন রণাঙ্গনের কোন সেক্টরের মুক্তিযোদ্ধা ছিলেন। আমরা দৃঢ়তার সাথে বলতে চাই, শহীদ জিয়ার লাশ সরানোর মতো যদি নিকৃষ্টতম কাজ করানো হয়, তাহলে যারা এই কাজটি করবেন, তাদের কালো হাত ভেঙে যাবে, গুঁড়ে যাবে, পুড়ে যাবে।”

জিয়াউর রহমানের কবর নিয়ে নতুন করে আলোচনার মধ্যে সোমবার মুক্তিযুদ্ধ বিষয়কমন্ত্রী আ ক ম মোজাম্মেল হক এক আলোচনা সভায় সাবেক এই প্রেসিডেন্টের কবর চন্দ্রিমা উদ্যান থেকে সরানোর পাশাপাশি বঙ্গবন্ধুর হত্যাকাণ্ডে জড়িত থাকার বিষয়ে ‘দালিলিক প্রমাণ’ থাকায় জিয়ার মুক্তিযোদ্ধা খেতাবও বাতিল করার কথা জানান।

আওয়ামী লীগ ক্ষমতায় যাওয়ার পর গত নবম ও দশম জাতীয় সংসদের একাধিক বৈঠকে জাতীয় সংসদ এলাকা থেকে জিয়ার কবরসহ লুই আই কানের নকশাবহির্ভূত সব স্থাপনা সরানোর বিষয়ে কথা ওঠে।

তখন বিএনপির পক্ষ থেকে প্রবল আপত্তি তোলা হয়েছিল। তবে ওই আলোচনা এক সময় স্তিমিত হয়ে পড়েছিল। সম্প্রতি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এক বক্তৃতায় বলেন, ওই কবরে জিয়ার লাশ নেই।

মঙ্গলবার সংবাদ সম্মেলনে বিএনপি নেতা প্রিন্স বলেন, “শহীদ জিয়ার মুক্তিযুদ্ধের সার্টিফিকেট কোলকাতায় আমোদ-প্রমোদকারীদের কাছে থেকে নিতে হবে না। শহীদ জিয়ার সার্টিফিকেট তিনি নিজেই, শহীদ জিয়ার সার্টিফিকেট বাংলাদেশের আপামর জনগণ।”

জিয়ার লাশ নিয়ে সড়ক পরিবহন ও সেতু মন্ত্রী, আইনমন্ত্রী, মুক্তিযুদ্ধ বিষয়কমন্ত্রী, তথ্যমন্ত্রী, নৌপরিবহন প্রতিমন্ত্রীসহ মন্ত্রী ও আওয়ামী লীগ নেতাদের ‘রুচিহীন ও কাণ্ডজ্ঞানহীন লাগামহীন মিথ্যাচারের’ প্রতিবাদ জানান তিনি।

এই বিএনপি নেতা বলেন, “আমরা বলতে চাই, শহীদ জিয়া, তার নেতৃত্বাধীন জেড ফোর্স, সেক্টরের সাহসী ও গৌরবময় অবদান নিয়ে নিকৃষ্ট মিথ্যাচার যারা করছে, তারাই ইতিহাসের আস্তাকুঁড়ে নিক্ষিপ্ত হচ্ছে, জাতি তাদেরকে ঘৃণাভরে প্রত্যাখ্যান করছে।”

নয়া পল্টনে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে সংবাদ সম্মেলনে দলের সহ সাংগঠনিক সম্পাদক আবদুস সালাম আজাদ, শহীদুল ইসলাম বাবুল, মুক্তিযোদ্ধা দলের সভাপতি ইশতিয়াক আজিজ উলফাত ও সাধারণ সম্পাদক সাদেক আহমেদ খান উপস্থিত ছিলেন।

 

0 0 votes
Article Rating
Subscribe
Notify of
guest
0 Comments
Inline Feedbacks
View all comments